Home / লাইফ-স্টাইল / ভুলেও টি ব্যাগের চা পান করবেন না
টি ব্যাগ
image: google

ভুলেও টি ব্যাগের চা পান করবেন না

আধুনিক কালে সময় যেন আমাদের কাছে যেন, ডুমুরের ফুল। আর এই ব্যস্ত জীবনে চা তৈরি করে খাওয়ার বা খাওয়ানোর জন্য নিশ্চয়ই খুব বেশি সময় ব্যয় করতে নারাজ আপনি? প্রতিদিন সকালে বেরনোর সময় টি ব্যাগই ভরসা হয়ত আপনার। জল একটু ফুটিয়ে কাপে ঢেলে টি ব্যাগ ডুবিয়ে দিলেই কাজ শেষ। যতক্ষণে চায়ের রং গাঢ় হচ্ছে, ততক্ষণে আপনার তৈরি হওয়া শেষ। এরপর কয়েক চুমুকে কাপের চা শেষ করেই বেরিয়ে পড়লেন। এটাই কি আপনার প্রতিদিনের অভ্যস? তবে সাবধান হওয়ার এটাই সময় সঠিক সময় আপনার । কেননা এই টি ব্যাগের আড়ালে আসলে বহু প্লাস্টিক কণা আপনার পেটে ঢুকছে আপনার অজান্তেই। আর এই কণা হতে পারে মারত্মক সব রোগ।

কানাডার মন্ট্রিলের ম্যাকগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক সম্প্রতিক প্রকাশিত রিপোর্ট বলছে, ফুটন্ত জলে টি ব্যাগ ডোবালে তা থেকে লক্ষ লক্ষ প্লাস্টিকের কণা বের হয় , যা চা খাওয়ার সময় শরীরে ভিতরে প্রবেশ করে। ফুটন্ত জলের তাপমাত্রাই ওই কণাগুলির সক্রিয়তা বেড়ে যায়। ম্যাকগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা ৪ রকম টি ব্যাগ পরীক্ষা করে দেখেছেন। প্রতিটিতেই প্লাস্টিকের উপস্থিতি দেখা গিয়েছে। এর এই গবেষণাটি আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত হয়েছে।

কিন্তু আপনি ভাবতে পারেন যে হঠাৎ কেন টি ব্যাগ নিয়ে গবেষণা শুরু করলেন বিজ্ঞানীরা? ঘটনা অন্যরকম! বছর কয়েক আগে রাতে কাজে যাওয়ার সময় কানাডার মহিলা নাতালি তুফেন-কেজি রাস্তার পাশে একটি ক্যাফেতে গিয়ে এক কাপ চায়ের অর্ডার দেন। সেখানে তাঁকে টি ব্যাগ সমেত কাপে চা দেওয়া হয়। চায়ে চুমুক দিতে গিয়ে তাঁর চোখে পড়ে, সাদা সাদা গুঁড়ো ভাসছে। প্রথমে বুঝতে না পারলেও, কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার নাতালি পারেন যে ওগুলো প্লাস্টিকের খুব সূক্ষ্ণ কণা।

তাঁর মনে আশঙ্কা জাগে, টি ব্যাগে চা খাওয়ার আড়ালে আসলে আমাদের শরীরে কত পরিমাণ প্লাস্টিক ঢুকছে, তা জানা দরকার। ওই চায়ের নমুনা সংগ্রহ করে ম্যাকগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে যোগাযোগ করে গবেষণা শুরু করেন। তাতেই উঠে আসে এমন চিন্তার বিষয়। জানা গিয়েছে, ১২০০ কোটি মাইক্রো-প্লাস্টিক এবং ৪০০ কোটি ন্যানো-প্লাস্টিক কণা থাকে একটি টি ব্যাগেই। যা সাধারণ চোখে দেখা যাওয়ার প্রশ্নই নেই। এমনকী মাইক্রোস্কোপেও গোটা অস্তিত্ব ধরা পড়ে না। ফলে কী বিপদ যে লুকিয়ে আছে, তা বুঝা সম্ভব হয় না।

তবে ম্যাকগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা প্রকাশ্যে আসায় তো সবই জানা গেল। এবার তো সাবধান হন। কথায় কথায় সহজে চা পানের জন্য টি ব্যাগ হাতে তুলে নেবেন না। নইলে প্লাস্টিকের বিষে আপনার শরীর ক্ষতিগ্রস্ত হতে বেশি দেরি হবে না। নিজে সচেতন হোন এবং অন্যকে সচেতন করতে সহায়তা করুন।

Check Also

সচেতন মানুষরা যে ভুলগুলো ২য় বার করে না

জীবনে চলার পথে ভুল হবে এটাই স্বাভাবিক। তবে এসব ভুল একবার করার পরেই আমাদের সতর্ক ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!